Home Jalpaiguri বনধ প্রত্যাহার

বনধ প্রত্যাহার

135
0
জলপাইগুড়ি, ১ এপ্রিল:   রাজ্য সরকারের তদন্ত কমিটির কাছে বক্তব্য পেশ করতে আসার আগেই কলেজে ১৭ দিনের বনধ প্রত্যাহার করে আন্দোলনকারি ছাত্রেরা।কিন্তু সন্ধ্যের সময় আন্দোলনকারিদের ৪০ জনের ছাত্রের বাইরে কলেজের মেসের কয়েকজন ছাত্রকে তদন্ত কমিটির সামনে কলেজ কর্তৃপক্ষ হাজির করাতেই বেঁকে বসে আন্দোলনকারি ছাত্ররা। এই ঘটনার পর জলপাইগুড়ি গভ ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজের ১৭ দিন পরেও বনধ প্রত্যাহার আপাতত করবে কি না তা নিয়ে সংশয় দেখান আন্দোলনকারিরা। এদিন রাজ্য কারিগরি শিক্ষা দপ্তরের অধিকর্তা অমলেন্দু বসুর নেতৃত্বে কোলকাতা থেকে তিনজন এবং পঞ্চানন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য্য দেবকুমার মুখার্জি,জেলার অতিরিক্ত জেলা শাসক সুমেধা প্রধান তদন্ত কমিটির হয়ে সার্কিট হাউসে সকলের বক্তব্য শোনেন।আন্দোলনকারি ছাত্রদের প্রথম থেকে চতুর্হ বর্ষের ছাত্রদের থেকে ১০ জন করে মোট ৪০ জন ছাত্রের বক্তব্য শোনেন তদন্ত কমিটি।কিন্তু আন্দোলনকারিদের বাইরে কেন কলেজের আন্দোলনের সাথে যুক্ত না থাকা মেসের কয়েকজন ছাত্রকে তদন্ত কমিটির সামনে হাজির করা হল।তাই সার্কিট হাউসে আসার আগে আমরা আন্দোলনকারিরা বনধ প্রত্যাহার করেই তদন্ত কমিটির সামনে হাজির হই।কিন্তু আন্দোলনকারি নন এমন ছাত্রদের হাজির করায় এবং সার্কিট হাউসে পুলিশ মোতায়েন করায় আমরা সোমবার থেকে আদৌ আন্দোলন থেকে সরে আসবো কি না তা নিয়ে পরে জানাবো বলে আন্দোলনকারি দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র শুভাশিস চন্দ জানিয়েছে।এদিন সার্কিট হাউসে ওই ছাত্রদের তদন্ত কমিটির সামনে হাজির করা নিয়ে কলেজ অধ্যক্ষ অমিতাভ রায় এবং কোতোয়ালি থানার আই সি বিশ্বাশ্রয় সরকারের সাথে আন্দোলনকারি ছাত্রদের সাথে বচসা বাঁধে।এরপর কলেজে গত ১৫ মার্চ দিলীপ কুমার কোলে নামে যে অধ্যাপকের হাতে প্রহৃত হন বলে দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রদের অভিযোগ।সেই কোলে কে এদিন সন্ধ্যায় সার্কিট হাউসে তদন্ত কমিটির সামিনে হাজির হতে দেখে ফের চেঁচামেচি শুরু করে দেন আন্দোলনকারি ছাত্রেরা।এদিন তদন্ত কমিটির সামনে কলেজের অধ্যক্ষ থেকে শুরু করে ফ্যাকাল্টিরাও নিজেদের বক্তব্য রাখেন।কলেজের অধ্যক্ষ অমিতাভ রায় জানান,আমরা কলেজ স্বাভাবিক করা, অন্য বিষয়,আন্দোলনে পঠন পাঠন কি সমস্যা হয়েছে সবকিছুই জানিয়েছি তদন্ত কমিটিকে।এদিকে কলেজের আন্দোলনকারি ছাত্র রৌনক নায়েক জানান,আমরা আন্দোলন প্রত্যাহার করেই সার্কিট হাউজে এসেছিলাম।কিন্তু অন্য ছাত্রদের কমিটির সামনে হাজির করাতে আমরা সোমবার থেকে কলেজে বনধ প্রত্যাহার করবো কি না পিরে জানাবো।এদিকে কলেজের অধ্যক্ষ অমিতাভ রায় জানিয়েছেন,তদন্ত কমিটির কাছে আন্দোলনকারি ছাত্রেরা বনধ প্রত্যাহার করে নিয়েছে।দেখা যাক সোমবার থেকে কলেজ স্বাভাবিক হলে কাজকর্ম করতে সুবিধা হবে।খবর লেখা পির্যন্ত রাত সারে সাতটা পর্যন্ত তদন্ত কমিটির সামনে হাজিরা চলছে।(এনএ)