Home Uncategorized পঞ্চায়েত নির্বাচনের প্রার্থী নিয়ে গোষ্ঠী তৃণমূলের সংঘর্ষে মৃত -১

পঞ্চায়েত নির্বাচনের প্রার্থী নিয়ে গোষ্ঠী তৃণমূলের সংঘর্ষে মৃত -১

93
0
 মালদা,৩ এপ্রিল ; পঞ্চায়েত নির্বাচনের প্রার্থী নিয়ে তৃণমূলের গোষ্ঠী সংঘর্ষ।প্রার্থী নিয়ে দলীয় কর্মীদের মধ্যেই মতো বিরোধ,দুই গোষ্ঠীর মধ্যে গুলির লড়াই।আর এই লড়াইয়ে প্রাণ গেলো গ্রামের নিরীহ যুবকের।ঘটনাস্থল মালদা।মাথায় গুলিবিদ্ধ অবস্থা কলকাতা নিয়ে যাওয়ার পথে মৃত্যু হলো ওই যুবকের।ঘটনাটি ঘটেছে মালদার কালিয়াচক থানার মোসমপুর অঞ্চলের জলাপাড়া এলাকায়।ঘটনার পর থেকেই উত্তপ্ত এলাকায় টহলদারি চালাচ্ছে পুলিশ।ইতিমধ্যে পুলিশ দুই জনকে গ্রেফতার করেছে জানাগেছে, মৃত যুবকের নাম নিজারুল রহমান(২৫)।পেশায় লেবার।বাবা আব্দুল হায়াৎ।মা রোজিনা বিবি।মা বাবার তিন পুত্র ও এক কন্যা সন্তানের মধ্যে বড়ছেলেছিলনিজারুল।জলাপাড়া গ্রামে সহ পরিবারের বসবাস।বাবা আব্দুল হায়াতের বয়সের সাথে শাররীক অসুস্থতায় কার্যত সংসারের ভার ছিল নিজারুলের ঘারে।বর্তমানে প্যান্ডেল ডেকোরেটারে নিজারুল লেবারের কাজ করে চলছিলো।সংসারের চাপে ফুরসৎ নেই, রাজনীতি থেকে দূরে ছিল নিজারুল সহ পরিবার।তবে রক্ষা হলো না।ঘটনা প্রসঙ্গে বাবা আব্দুল হায়াৎ বলেন,”সোমবার সন্ধে থেকে জলাপাড়া গ্রামেই চলছিলো তৃণমূলের এক মিটিং।সেই মোটিংয়ে পঞ্চায়েতের প্রার্থী কে হবে তা নিয়ে গন্ডগোল চলছিলো।অনেক কর্মী ভোটে দাঁড়ানোর কথা বলাই দীর্ঘক্ষণ ধরে গন্ডগোল চলছিলো।সেইসময় প্যান্ডেলের কাজ করে রাস্তা দিয়ে হেটেই বাড়ি ফিরছিলো ছেলে।তৃণমূলের সেই গন্ডগোলের গুলি ছেলের মাথায় লাগে।তারপর স্থানীয়রা ছেলেকে উদ্ধার করে আমাদের খবর দেয় এবং মালদা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে।কলকাতা নিয়ে যাওয়ার পথেই মৃত্যু হয় ছেলের।আমরা কোনো রাজনৈতিক দলের সঙ্গে যুক্ত নয় তবুও প্রাণ গেলো ছেলের।কি দোষ ছিলো আমার ছেলের ? দোষীদের শাস্তি চাই।আমার পরিবার ছারখার করে দিলো”।এদিকে রাতেই ঘটনাস্থলে পৌঁছায় কালিয়াচক থানার পুলিশ।ঘটনায় দুই জনকে ইতিমধ্যে গ্রেফতার করা হয়েছে।

Facebook Comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here